ঢাকা, মঙ্গলবার, ২রা মার্চ ২০২১ ইং | ১৮ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বোদায় জমি নিয়ে বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় এক বৃদ্ধার মৃত্যু

পঞ্চগড় প্রতিনিধি: পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলায় জমি নিয়ে বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষের হামলা ও রডের দ্বারা বেধরক মারপিটে সুফিয়া বেগম সুফি (৫০) নামে এক নারীর মৃত্যু হয়েছে।আজ বুধবার দুপুরে জেলার বোদা উপজেলার চন্দনবাড়ি ইউনিয়নের কুমপুকুরী এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে। নিহত সুফিয়া বেগম সুফি ওই এলাকার কামরুজ্জামান ওরফে কমরেডের স্ত্রী। এ ঘটনায় দুই পক্ষেরই কমপক্ষে ৭ জন আহত অবস্থায় বোদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়ে চিকিৎসাধীন। এ ঘটনায় কামরুজ্জামান ওরফে কমরেড বোদা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। আহতরা হলেন বাদী পক্ষের কামরুজ্জামান ওরফে কমরেড (৬৬),তার মেয়ে কল্পনা বেগম (২৮) ও ভ্যান চালক আসাদুজ্জামান (৪০) তার স্ত্রী জেমি বেগম (৩৫) এবং বিবাদী পক্ষের তৈবুল আলম (৬৫) তার স্ত্রী লুৎফা বেগম (৫৪), তাদের পুত্রবধূ নারগিছ আকতার।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, উপজেলার চন্দনবাড়ি ইউনিয়নের কুমপুকুরী এলাকার
কামরুজ্জামান ওরফে কমরেডের সাথে একই এলাকার তৈবুল আলমের (৬০) সাথে দীর্ঘ দিন ধরে ৪ শতক জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। পরে এ নিয়ে আদালতেও মামলা গড়ায়। তারপরেও সেই বিরোধ না মেটায় স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের শালিসের দাড়া গত এক বছর ধরে সেই জমিতে চাষাবাদ করে আসছিলেন কামরুজ্জামান ওরফে কমরেড। তারপরেও এ নিয়ে তাদের মাঝে প্রায়ই ঝগড়া লেগে থাকতো। বুধবার সকালে ওই জমিতে ফসল ফলানোর জন্য চাষাবাদের পরে ছাই ছিটাচ্ছিলেন কামরুজ্জামান ওরফে কমরেডের স্ত্রী সুফিয়া বেগম সুফি। পরে এ নিয়ে সুফিয়া বেগমের সাথে তৈবুল আলম ও তার ছেলে হারুন,লতিফ এবং তৈবুলের ভাই তরিকুলের ছেলে আফজালুরের বাকবিতন্ডা শুরু হলে তারা ছাই সুফিয়ার চোখের উপর ছুড়ে মারে। পরে তিনি মাটিতে পড়ে গেলে তাকে বেধরক মারপিট করে তারা। কামরুজ্জামানের মেয়ে কল্পনা আক্তার (২৮) ঘটনাস্থলে দৌড়ে গেলে তাকে ও তার মাকে বেধরক মারপিট শুরু করে তারা। বাকবিতন্ডা শুনে কামরুজ্জমান গেলে তাকেও মারধর করা হয়। পরে পরিবারের সদস্যরা কল্পনা ও তার মা সুফিয়াকে উদ্ধার করে বোদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পথে চন্দনবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদ এলাকায় অটোভ্যানের গতিরোধ করে তৈবুল আলমের ছেলে হারুন,লতিফ এবং তৈবুলের ভাই তরিকুলের ছেলে আফজালুর। সেখানে তারা কামরুজ্জামানের মেয়ে কল্পনা ও স্ত্রী সুফিয়াকে রডের দ্বারা বেধরক মারপিট করে। সেখানে ইউনিয়ন পরিষদ বাজারের লোকেরা এগিয়ে এলে হারুন ও লতিফ পালিয়ে গেলেও স্থানীয়দের হাতে আফজালুর (৪০) আটক হয়। পরে তাকে বোদা থানা পুলিশে সোপর্দ করে স্থানীয়রা। পরে স্থানীয়রা তাদেরকে উদ্ধার করে বোদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিতিৎসক সুফিয়াকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করে। পরে পথিমধ্যে তার মৃত্যু হয়।

এদিকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুঁটে যায় বোদা থানা পুলিশ। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও বোদা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাহিদুর জাহিদ জানান, আমরা লাশের প্রাথমিক সুরৎহাল করেছি। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।
বোদা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু সাঈদ চৌধুরী জানান,আমরা এ পর্যন্ত তৈবুল আলম, তার স্ত্রী লুৎফা বেগম,তাদের পুত্রবধূ নারগিছ আকতার ও আফজালুরকে আটক করতে সক্ষম হয়েছি বাকীদের আটকের জন্য আসাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

You must be Logged in to post comment.

অর্থ টোকাও ছাইফুল ইসলাম     |     কাল বোশেখী আঃ রশিদ তালুকদার     |     মুক্তিযোদ্ধার বাড়ি ঘর ভাঙচুর প্রতিবাদে ভূঞাপুরে মানববন্ধন     |     টাঙ্গাইলে সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলনের পতাকা মিছিল     |     গাইবান্ধায় লাল মিয়া খুনের ঘটনায় হত্যাকারীদের গ্রেফতার দাবীতে বিক্ষোভ     |     টাঙ্গাইলে পুলিশ মেমোরিয়াল ডে পালিত     |     গাইবান্ধায় পালিত হলো ‘পুলিশ মেমোরিয়াল ডে-২০২১     |     বাগাতিপাড়ায় ইউনিয়ন আ’লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত     |     পঞ্চগড়ে গৃহহীন-ভূমিহীন ৮টি পরিবারকে ঘর নির্মাণ করে দিচ্ছেন স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা।     |     তেঁতুলিয়ায় গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে আহত ইউনুস রংপুর মেডিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু      |