ঢাকা, সোমবার, ২৫শে অক্টোবর ২০২১ ইং | ১০ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

মেহেরপুরের গাংনীর বিএডিসি অফিস এখন দুর্নীতির আখড়া ভূ-গর্ভস্থ সেচ প্রকল্পের কাজ দায়সারাভাবে করার অভিযোগ

আমিরুল ইসলাম অল্ডাম মেহেরপুর জেলা প্রতিনিধি : মেহেরপুরের গাংনী উপজেলা বিএডিসি অফিস এখন দুর্নীতির আখড়ায় পরিণত হয়েছে। চলতি মৌসুমে ভূ-গর্ভস্থ সেচ প্রকল্পের (নালা) কাজ সিডিউল মোতাবেক না করে প্রকল্পের ঠিকাদারের যোগসাজশে বিএডিসির গাংনী অফিসের উপ সহকারী প্রকৌশলী শ্যামল হোসেন হাজার হাজার টাকা অর্থ বাণিজ্য চালিয়ে যাচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, এবছরের নতু সেচ প্রকল্প হিসাবে উপজেলার মহাম্মদপুর গ্রামের সেচ প্রকল্পের ম্যানেজার মহিবুল ইসলামের ২ কিউসেক (এলএলপি), একই গ্রামের সাইদুল ইসলাম ও আলী আজমের ৫ কিউসেক (এলএলপি) প্রকল্পের ডিজাইন মোতাবেক রাইজার ভালব ঢালাই না করে যেন-তেন দায়সারা ভাবে নি¤œমানের কাজ করে টাকা পকেটস্থ করছে।একই রকম অভিযোগ উঠেছে ভরাট গ্রামের জিল্লুর রহমানের প্রকল্পে।এছাড়াও অভিযোগ রয়েছে, বিএডিসি অফিসের প্রকল্প বাস্তবায়নে গ্রাহকদের সাথে টাকা লেন দেন করতে দালাল ব্যবহার করা হয়ে থাক্ ে। এদের মাধ্যমে নির্ধারিত দুরত্ব না থাকলেও প্রকল্প বরাদ্দ দেয়া হয়ে থাকে।
এ ব্যাপারে প্রকল্প ম্যানেজার সাইদুল ইসলাম জানান, ভাই আমি মূর্খ মানুষ। এই কাজের ব্যাপারে আমি কিছুই জানি না। কি রকম ডিজাইন রয়েছে এবং কেমন কাজ করা হচ্ছে তা কিছুই বুঝি না। তবে ব্যাংকে একাউন্ট করার জন্য এবং অফিস খরচ হিসাবে কিছু টাকা পয়সা দিতে হয়েছে। ম্যানেজার মিজানুর রহমান জানান,খলিসাকুন্ডি-রাজাপুর গ্রামের ম্যানেজার হাফিজুর রহমান মুকুটের কাজ তুলনামূলক ভাল করেছে। কারন হিসাবে জানা গেছে, মুকুট অফিসারকে ৩ লাখ টাকা পকেটমানি দিয়ে তুষ্ট করেছে বলে কথিত রয়েছে।
এ ব্যাপারে গাংনী বিএডিসি অফিসের উপ সহকারী প্রকৌশলী শ্যামল হোসেন জানান, এটা নতুন প্রকল্প। প্রকল্প বাস্তবায়নে ১৫ হাজার টাকা থেকে ২৬ হাজার টাকা পর্যন্ত বরাদ্দ রয়েছে। সবকিছুই নিয়ন্ত্রণ করেন পিডি মহোদয়।কাজের ঠিকাদার সিডিউল অনুযায়ী কাজ করা হচ্ছে। সিডিউল অনুযায়ী ২১ টি গ্যাস পাইপ দেয়ার কথা থাকলেও ৮/ ১০ টি দেয়া হচ্ছে কেন এমন প্রশ্নের জবাবে শ্যামল হোসেন জানান, এটা পিডি অফিস থেকে দেয়া হয়েছে। সরবরাহ কম থাকায় পাইপ কম করে দেয়া হচ্ছে। কোন ম্যানেজারদের নিকট থেকে কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি। উপজেলা সেচ প্রকল্প সমিতির সেক্রেটারী ওসমান আলী অথবা ম্যানেজার মিজানুর রহমান এরকম ভূয়া মিথ্যা অভিযোগ সাংবাদিকদের কাছে দিয়েছে।
এব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও উপজেলা সেচ প্রকল্প কমিটির সভাপতি মৌসুমী খানম জানান, আমি বিষয়টি খোঁজখবর নিয়ে দেখবো। কর্মদিবস আগামী রোববারে প্রকৌশলীর সাথে আলাপ করবো।কোন অনিয়ম হলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

You must be Logged in to post comment.

তেঁতুলিয়ার শালবাহান ইউনিয়নে নৌকার জয়ের প্রত্যাশা জননেতা আশরাফুলের     |     দিনাজপুরে জাতীয় পার্টির উপজেলা দিবস পালনে বিক্ষোভ ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত॥     |     সুন্দরগঞ্জে স্কুলছাত্রী উদ্ধার: অপহরণকারী গ্রেপ্তার     |     ফুলবাড়ী উপজেলা বিএনপির সভাপতিকে স্বপদে বহাল নেতা কর্মিদের আনন্দ মিছিল,  সংবর্ধনা প্রদান     |     তথ্যসন্ত্রাস ও মির্জা ফখরুলদের অপপ্রচার সাম্প্রদায়িক হামলাকারীদের রক্ষা করার অপকৌশল-আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম     |     টাঙ্গাইলে রিজার্ভ ট্যাংক পরিস্কার করতে গিয়ে মামা ভাগ্নের মৃত্যু     |     আসন্ন শৈলকুপা ইউপি নির্বাচনে আবাইপুর ইউনিয়নে আ’লীগের প্রার্থী মোক্তার আহমেদ মৃধা জনসমর্থনে এগিয়ে     |     পঞ্চগড়ে মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২ আহত ২     |     টাঙ্গাইলে নিখোঁজের দুইদিন পর কিশোরের লাশ উদ্ধার     |     ঠাকুরগাঁওয়ে সাম্প্রদায়িক সহিংসতার প্রতিবাদে গণঅনশন-গণ অবস্থান ও বিক্ষোভ মিছিল ।     |