ঢাকা, শুক্রবার, ২৯শে সেপ্টেম্বর ২০২৩ ইং | ১৪ই আশ্বিন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

কোটা বাতিল ঘোষণা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

চলমান কোটা সংস্কার আন্দোলন নিয়ে জাতীয় সংসদ অধিবেশনে বক্তব্য রাখার সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন ছাত্রদের দাবির প্রেক্ষিতে সরকারি চাকরিতে কোটা বিলুপ্ত করা হবে।

দেশব্যাপী ছাত্র-জনতার আন্দোলন আর অবরোধের মুখে সরকারি চাকরিতে কোটা প্রথা বাতিলের ঘোষণা দিয়েছে সরকার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতীয় সংসদের চলতি অধিবেশনে প্রশ্নোত্তর পর্বে বুধবার সন্ধ্যা পৌনে ছয়টায় কোটা বাতিলেন ঘোষণা দেন। ফলে এখন থেকে সরকারি চাকরিতে কোন কোটা বৈষম্য থাকছে না। তবে আন্দোলনকারীরা অবশ্য কোটা বাতিল নয় সংস্কারের দাবিতেই আন্দোলন করছিলেন।

কোটা প্রথা সংস্কারের ঘোষণা দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘কোটা পদ্ধতি বাতিল, পরিষ্কার কথা। বারবার ঝামেলার চেয়ে এটা বাতিল হলেই ভালো। যেহেতু কেউ কোটা পদ্ধাতি চায় না, তাই কোনো কোটাই থাকবে না। এতে তো আর কারো আপত্তি থাকবে না। মেয়েরাও দেখি রাস্তায় নেমে গেছে। তার মানে তারাও কোটা চায় না। আমি খুশি, তারা পরীক্ষা দিয়ে চলে আসবে। তাহলে কোটা পদ্ধতিরই দরকার নেই।’ আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘যথেষ্ট হয়েছে, এবার তারা বাড়ি ফিরে যাক।’

ভিসির বাসভবন ভাঙচুরে জড়িতদের বিচার করা হবে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘অর্জিত শিক্ষা এখন ব্যবহার হচ্ছে গুজব ছড়ানোর কাজে। সেদিন এক ছাত্রের মৃত্যুর গুজব ছড়ানো হলো, ছাত্রীরাও হলের গেট ভেঙে বেরিয়ে আসে। কোনো অঘটন ঘটলে দায়িত্ব নিতো কে? ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটেছে ভিসির বাড়িতে আক্রমণের মাধ্যমে। সবকিছু ভেঙে চুরমার করা হয়েছে। পরিকল্পিতভাবে এই হামলা হয়েছে। এই হামলার নিন্দা জানাই। ভাঙচুরের সঙ্গে জড়িতদের অবশ্যই বিচার হবে, ইতোমধ্যে গোয়েন্দারা কাজ করছে।’

প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার আগে বুধবার সকালে চলমান আন্দোলনের প্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাত করেন ছাত্রলীগ সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ এবং সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইন। এ সময় তারা দেশব্যাপী ছাত্রদের আন্দোলনের খবর এবং দাবিগুলো প্রধানমন্ত্রীকে অবহিত করেন বলে দাবি করেছেন। সাক্ষাত শেষে ছাত্রলীগের এই শীর্ষ দুই নেতা বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা যা বলেন তা করেন। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, সরকারি চাকুরীতে কোন কোটা পদ্ধতি থাকবেনা’।

পাঁচটি দাবিকে সামনে রেখে শিক্ষার্থীদের এই আন্দোলন শুরু হয়। দাবিগুলো হচ্ছে- সরকারি নিয়োগে কোটার পরিমাণ ৫৬ শতাংশ থেকে কমিয়ে ১০ শতাংশ করা, কোটার যোগ্য প্রার্থী না পেলে শূন্যপদে মেধায় নিয়োগ, কোটায় কোনো ধরনের বিশেষ নিয়োগ পরীক্ষা না নেওয়া, সরকারি চাকরির ক্ষেত্রে অভিন্ন বয়সসীমা, নিয়োগ পরীক্ষায় একাধিকবার কোটার সুবিধা ব্যবহার না করা।

You must be Logged in to post comment.

মেহেরপুরে জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা পদক-২০২৩ পেলেন যারা     |     ঝিনাইদহে কোরিয়ান ল্যাংগুয়েজ সেন্টারে শিক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত     |     ট্রাকের চাপায় ভ্যানচালকের মৃত্যু     |     পঞ্চগড় জেলার শ্রেষ্ঠ উপজেলা চেয়ারম্যান ফারুক আলম টবি     |     মেহেরপুর জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের উদ্যোগে হাসপাতালে খাবার ও পোশাক বিতরণ অনুষ্ঠিত     |     গাংনীতে পবিত্র ঈদ-ই- মিলাদুন্নবী (সাঃ)উপলক্ষে মহানবীর জীবনী ও কর্ম সম্পর্কিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত     |     পুলিশের অভিযানে হারানো মোবাইল ফোন ও টাকা মালিকদের হাতে ফেরত     |     আটোয়ারীতে ঈদে মিলাদুন্নবী (স:) উদযাপন উপলক্ষে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা ও সমাবেশ     |     রুহিয়ায় কমিউনিটি ক্লিনিক এর উদ্বোধন      |     ফুলবাড়ীতে পানিতে ডুবে চতুর্থ শ্রেণীর শিক্ষার্থীর মৃত্যু     |