ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯শে জুলাই ২০২১ ইং | ১৪ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

ভারতে রপ্তানি হচ্ছে সাতক্ষীরার সরিষা ফুলের মধু

আব্দুল আলিম, সাতক্ষীরা : সাতক্ষীরার উৎপাদিত সরিষা ফুলের মধু ভারতে রপ্তানি হচ্ছে। চলতি মৌসুমে জেলার সরিষা ক্ষেতগুলোতে চলছে মধু আহরন। ২০০ শতাধিক ভ্রাম্যমান মৌমাছি পালন খামারী জেলার বিভিন্ন প্রান্তে সরিষা ক্ষেতের পাশে মৌবক্স বসিয়েছেন। এবার সরিষা ফুলের ধরন ভালো হওয়ায় মধু সংগ্রহ বাড়ছে বলে জানান মৌখামারীরা।
এদিকে সাতক্ষীরা জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের তথ্যানুযায়ী চলতি মৌসুমে সরিষা ফুলের মধু উৎপাদন লক্ষ্য নির্ধারন করা হয়েছে ৩৬ মেট্রিকটন।
সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলার বুধহাটা গ্রামের মৌচাষি আইয়ুব হোসেন জানান, গত ১০/১২ বছর যাবত তিনি সরিষা ফুলের মধু সংগ্রহ করেন। স্থানীয় ছাড়াও জেলার বাইরে তিনি মৌবক্স স্থাপন করে সরিষা ফুলের মধু আহরন করে থাকেন। মৌচাষি আইয়ুব হোসেন জানান, চলতি মৌসুমে ২৫০ টি বক্স বসিয়েছেন সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলা সদরের সরিষা ক্ষেতে। এসব বক্সে অন্তত ৩ টন মধু সংগ্রহ হবে বলে আশা করছেন। যার বাজার মুল্য ৫৮ থেকে ৬০ হাজার টাকা বলে জানান তিনি।
সাতক্ষীরা সদরের কাথন্ডা গ্রামের মৌচাষী রফিকুল ইসলাম বলেন, চলতি মৌসুমে কাথন্ডা সরিষা মাঠে ২০০ মৌ বক্স বসিয়েছেন মধু আহরনের জন্য। গত বছর এ মাঠে একই পরিমান মৌবক্স বসিয়ে প্রায় ২ টন ৬০০ কেজি সরিষা মধু সংগ্রহ করেন। তবে চলতি মৌসুমে মধু পরিমান বেশি হবে বলে আশা করছেন তিনি।
মৌচাষি আইয়ুব হোসেন ও রফিকুল ইসলামের মত জেলার ২ শতাধিক মৌচাষি সরিষা ফুলের মধু সংগ্রহে ব্যস্ত রয়েছেন।
সাতক্ষীরার মধু রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান মেসার্স শিমু এন্টারপ্রাইজের স্বত্তাধিকারী ও বাংলাদেশ মৌমাছি পালন সমিতির সভাপতি মো. আফজাল হোসেন জানান, মধু উৎপাদনে খুবই সম্ভাবনাময় সাতক্ষীরা জেলা। কুল, সরিষা ও আম মুকুল মৌসুমে প্রচুর পরিমান মধু আরহন হয়ে থাকে। এরমধ্যে সবচেয়ে বেশি পরিমান মধু সংগ্রহ করা হয় সরিষা ফুল থেকে। এসব মধুর বেশির ভাব ভারতে রপ্তানি করা হচ্ছে। তিনি বলেন, ২০১৩ সাল থেকে ভারতে মধু রপ্তানি শুরু হয়। বছরে ৫০০ টন মধুর চাহিদা রয়েছে ভারতে। তিনি আরো জানান, সরিষা ফুলের মধু ভারতে রপ্তানি মুল্য সাড়ে ৫ হাজার প্রতি মন। মধু রপ্তানিতে সরকারের ভর্তুকি পাওয়া যায় ২০%। আফজাল হোসেন আরো বলেন, মৌমাছি পালনের পাশাপাশি গত ৬/৭ বছর যাবত ভারতে মধু রপ্তানি করছেন। গত মৌসুমে তিনি ২০০ টন মধু ভারতে রপ্তানি করেছেন। চলতি মৌসুমে ৩০০ থেকে ৩৫০ সরিষা ফুলের মধু ভারতে রপ্তানি করবেন বলে আশা করছেন। এ জন্য গাজীপুর জেলাতে মধু প্রসেসিং ফ্যাক্টরী গড়ে তুলেছেন। তাছাড়ও তিনি দেশের উত্তরবঙ্গো এলাকাতে মধু সংগ্রহ করেন।
সাতক্ষীরা জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক নূরুল ইসলাম জানান, চলতি মৌসুমে জেলায় সরিষা ফুলের মধু আহরনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারন করা হয়েছে ৩৬ মেট্রিকটন। সাড়ে ১২ হাজার হেক্টর জমির সরিষা ক্ষেতে ৩ হাজার মৌবক্স বসানো হয়েছে। প্রতি বক্সে সর্বনিম্ন ১২ কেজি করে মধু সংগ্রহ হবে আশা করছেন তিনি। নূরুল ইসলাম জানান, ইতিমধ্যে জেলার বেশ কিছু সরিষা চাষিকে পরামর্শও দেয়া হয়েছে, তারা যেন মৌখামারীদের সহযোগিতা করেন। কারন অনেক চাষি না জেনে সরিষা ক্ষেতের পাশে মৌবক্স বসাতে দিয়ে চায় না। তারা মনে করেন মৌমাছি ফুলে বসলে হয়তো সরিষার উৎপাদন কম হবে। কিন্ত বাস্তবে মৌমাছি ফুলে পরাগায়ন করলে সরিষার ফলন ভালো হয়। অন্যদিকে ফুল থেকে মধু আহরন করে মৌমাছি।

You must be Logged in to post comment.

ঠাকুরগাঁওয়ে হরিপুরে বিরল রোগে আক্রান্ত  তিন শিশু ।     |     বিশ্ব ঐতিহ্য সুন্দরবনে ২৭৬ টি রয়েল বেঙ্গল টাইগারের হদিস নেই!     |     গাংনীতে ঢেউটিন প্রদানের শ্লিপ বিতরণ অনুষ্ঠিত     |     সাতক্ষীরায় করোনার উপসর্গ নিয়ে ৫ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৬৫     |     নীলকরদের অত্যাচার নির্যাতনের কালের স্বাক্ষী ভাটপাড়া নীলকুঠি গাংনীর ভাটপাড়া নীলকুঠি এখন ডিসি ইকো পার্ক । পর্যটন-বিনোদন কেন্দ্র।     |     আটোয়ারীতে করোনায় মৃত ব্যক্তিদের দাফন বিষয়ে ধর্মীয় প্রতিনিধিদের প্রশিক্ষণ     |     ঠাকুরগাঁওয়ে রাইস ট্রান্সপ্লান্টারের মাধ্যমে ধানের চারা রোপণ কার্যক্রমের উদ্বোধন     |     প্রাকৃতিক পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় বনায়নের গুরুত্ব অপরিসীম -এমপি গোপাল     |     ফুলবাড়ীতে ওএমএমের চাল মুদি দোকানে এক হাজার টাকা জরিমানাসহ মুচলেকা     |     ঝিকরগাছায় সভাপতি করোনা আক্রান্ত হওয়ায় সুস্থতা কামনা করেছেন প্রধান শিক্ষক     |